উচ্চস্বরে গান বাজিয়ে স্ত্রীকে হত্যা!

ঘরের দরজার ছিটকিনি আটকিয়ে উচ্চস্বরে গান বাজিয়ে টুম্পার মাথায় ও শরীরে ছুরিকাঘাত করে স্বামী রকি

গাজীপুরের কালিয়াকৈরে পারিবারিক কলহের জেরে সাথী আক্তার টুম্পা (২২) নামে এক পোশাককর্মীকে ছুরিকাঘাতে হত্যা করেছে তার স্বামী।

শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে ৯৯৯ নম্বরে কল পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে নিহতের লাশ উদ্ধার করে। ঘটনার পর থেকে নিহতের স্বামী পলাতক রয়েছে।

নিহত টুম্পা পাবনা সদর উপজেলার পাঁচবিবি এলাকার রকি হোসেনের (২৬) স্ত্রী এবং একই জেলার ঈশ্বরদী উপজেলার কলোনী বাজার এলাকার আব্দুল মান্নানের মেয়ে।

ইন্সপেক্টর মোজাম্মেল হোসেন জানান, উপজেলার ভান্নারা এলাকায় শেখ জালাল উদ্দিনের বাড়িতে গত তিন সপ্তাহ আগে বাসা ভাড়া নিয়ে স্ত্রী টুম্পা ও একমাত্র সন্তানকে (১৭ মাস) নিয়ে বাস করে আসছিল রকি হোসেন। টুম্পা পেশায় পোশাক কর্মী। শুক্রবার সকালে দাম্পত্য কলহের জেরে রকি ও টুম্পার মধ্যে ঝগড়া বিবাদ শুরু হয়। এক পর্যায়ে ঘরের দরজার ছিটকিনি আটকিয়ে উচ্চস্বরে গান বাজিয়ে টুম্পার মাথায় ও শরীরে ছুরিকাঘাত করে স্বামী রকি। এতে টুম্পা মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। পরে আহত টুম্পার চিৎকারে প্রতিবেশীরা এগিয়ে এলে রকি ঘরের দরজা খুলে দৌড়ে পালিয়ে যায়। পরে এলাকাবাসী রক্তাক্ত টুম্পাকে উদ্ধার করে কালিয়াকৈর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

৯৯৯ নম্বরে কল পেয়ে বেলা সাড়ে ১১টার দিকে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে নিহতের লাশ এবং হত্যার কাজে ব্যবহৃত রক্ত মাখা একটি বড় ছোরা উদ্ধার করে।

কালিয়াকৈর মৌচাক পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ ইন্সপেক্টর মোজাম্মেল হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, নিহতের লাশ ময়না তদন্তের জন্য গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে। তবে কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি।