বাড়ির পাশে দাঁড়িয়ে থাকা বিসিএস পরীক্ষার্থীর প্রাণ গেল ট্রাকচাপায়

নাটোরের বড়াইগ্রামে সড়ক দুর্ঘটনায় মামুন হোসেন (২৬) নামে এক বিসিএস পরীক্ষার্থী ট্রাকচাপায় নিহত হয়েছেন।
মামুন হোসেন উপজেলার গোপালপুর ইউনিয়নের ঝাড়-গোপালপুর গ্রামের মুক্তার হোসেনের ছেলে।
শনিবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যা সাতটার দিকে নিজ বাড়ির সামনে রাজাপুর-জোনাইল রোডের ঝাড়-গোপালপুর গ্রামের সৈয়দ মোড় এলাকায় দুর্ঘটনাটি ঘটে।
পুলিশ ও এলাকাবাসী জানান, সন্ধ্যা সাতটার দিকে বাড়ির পাশে রোডে দাঁড়িয়েছিলেন মামুন। এমন সময় ঈশ্বরদী থেকে বালি বোঝাই নূর ট্রেডার্সের একটি ট্রাক গোপালপুর গ্রামের জয়নালের বাড়িতে যাওয়ার পথে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রোডের রংসাইডে গিয়ে মামুনকে চাপা দিয়ে মধু প্রামানিকের ঘরের মধ্যে ঢুকে পড়ে। এ সময় পাশে একটি গাছ থাকায় ঘরের ভেতরে থাকা সবাই প্রাণে বেঁচে যায়। ঘরে থাকা লোকজনের চিৎকারে এলাকাবাসী ছুটে এসে মামুনকে উদ্ধার করে দ্রুত রাজাপুর স্থানীয় শশী ক্লিনিকে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।
গোপালপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আব্দুস সালাম জানান, মামুন হোসেন কৃষক মুক্তার হোসেনের ছেলে এবং তিনি পাবনা সরকারি এডওয়ার্ড কলেজ থেকে ইংরেজিতে অনার্সসহ স্নাতকোত্তর ডিগ্রি লাভ করে বিসিএস পরীক্ষার প্রস্তুতির জন্য পাবনাতেই থাকতেন। দুই দিনের জন্য বাড়িতে এসে সন্ধ্যায় বাড়ির পাশে রোডে দাঁড়িয়েছিলেন। ওই সময় ট্রাক তাকে চাপা দেয়।
তিনি আরও বলেন, নিহতের বাবার অভিযোগ না থাকায় ময়নাতদন্ত ছাড়াই রোববার সকাল দশটায় রাজাপুর কেন্দ্রীয় ঈদগাহ মাঠে জানাজা শেষে রাজাপুর কেন্দ্রীয় গোরস্থানে তাকে দাফন করা হয়।
বড়াইগ্রাম থানার ওসি দিলীপ কুমার দাস বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, কেউ বাদী না হওয়ায় মরদেহটি দাফনের অনুমতি দেয়া হয়েছে। ঘটনার পর চালক ও হেলপার পালিয়ে যায়।