ময়লা নোট থেকেও ছড়াতে পারে করোনাভাইরাস: বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বা ডব্লিউিএইচও সতর্ক করে দিয়ে বলেছে যে, ময়লা নোট থেকে করোনাভাইরাস ছড়াতে পারে। তাই মানুষজনের উচিত লেনদেনের সময় স্পর্শবিহীন ব্যবস্থা ব্যবহার করা। সোমবার জাতিসংঘের এই সংস্থাটি জানায়, ব্যাংকনোট স্পর্শ করার পর হাত ধোয়া উচিত। কেননা করোনার জীবাণু কয়েকদিন পর্যন্ত নোটের গায়ে লেগে থাকতে পারে।

ডব্লিউএইচও’র একজন মুখপাত্র বলেন, এই রোগের বিস্তার রোধে লেনদেনের ক্ষেত্রে মানুষজনের স্পর্শবিহীন প্রযুক্তি ব্যবহার করা উচিত। ব্যাংক অব ইংল্যান্ড বলছে যে, ব্যাংকনোট ‘ব্যাকটেরিয়া বা ভাইরাস বহন করতে পারে’; আর তাই মানুষজনকে নিয়মিত হাত ধুতে আহ্বান জানিয়েছে তারা।

করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধে গত মাস থেকে চীন ও দক্ষিণ কোরিয়া ব্যবহৃত ব্যাংকনোটগুলোকে জীবাণুনাশ এবং বিচ্ছিন্ন করা শুরু করে। একই সঙ্গে এসব নোট জীবাণুমুক্ত হওয়ার পরই আবার বাজারে ছাড়ার নির্দেশ দেয় চীনা কর্তৃপক্ষ।

এদিকে করোনাভাইরাসের কারণে বিশ্ব ‘অরক্ষিত অঞ্চল’ হয়ে উঠছে বলে মন্তব্য করেছে ডব্লিউএইচও। এই ভাইরাসটি যেভাবে দ্রুত ছড়িয়ে পড়ছে, সেটিকে ‘ব্যতিক্রম’ বলেও বর্ণনা করেছেন সংস্থাটির প্রধান টেডরোস আধানম গেব্রিয়াস। একইসঙ্গে করোনাভাইরাসকে ফ্লুর চেয়ে ভয়াবহ বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

উল্লেখ্য, চীনের উহান শহর থেকে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসে বিশ্বজুড়ে ৯৩ হাজারের বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে। আর মৃত্যু হয়েছে অন্তত ৩১৯৮ জনের। প্রাণঘাতী এই ভাইরাসটি ছড়িয়ে পড়েছে অন্তত ৭৬টি দেশে।